জামালপুরে গৃহবধুকে গণধর্ষণের পর স্বামীকে হত্যা

1

জামালপুর ঃ জামালপুর সদর উপজেলায় এক গৃহবধুকে গণধর্ষণ ও তার স্বামীকে হত্যা করে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা বলে চালানোর চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। সোমবার রাতে নির্যাতনের শিকার গৃহবধূকে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ একটি অপমৃত্যুর মামলা করলেও ধর্ষণের মামলা নেয়নি বলে অভিযোগ ভিকটিমের।
জামালপুর সদর উপজেলার শ্রীপুর ইউনিয়নের রামকৃষ্ণপুর গ্রামে ধর্ষণের শিকার গৃহবধু জানান, শুক্রবার রাত ৮টার দিকে ঘর থেকে বাইরে বের হলে প্রতিবেশী ছানোয়ার, শাওন ও রফিজ উদ্দিন তাকে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে যায়। পরে তাকে ছানোয়ারের বাড়ির পেছনে একটি জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করে এবং গাছের সাথে বেঁধে মারধর করে। এরপর ওই গৃহবধূকে ছানোয়ারের বাড়িতে আটকে রেখে তার স্বামীকে (খলিলুর রহমান) ডেকে আনে। পরে তাকে মারধর করে হত্যার পর তার লাশ বাড়ির পাশে একটি গাছে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে। এঘটনার পরদিন সকালে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য জামালপুর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠায় এবং একটি অপমৃত্যুর মামলা করে।
জামালপুর সদর থানার ওসি সালেমুজ্জামান জানান, ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে এটি হত্যা না আত্মহত্যা তা জানা যাবে। তবে ওই গৃহবধূকে গণধর্ষণের বিষয়ে এখন পর্যন্ত থানায় কেউ কোনো অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments are closed.