জামালপুর ইসলামপুরে বন্যা ৭ ইউনিয়ন প্লাবিত

23

নারায়ন মোদক ইসলামপুর ঃ জামালপুর জেলার ইসলামপুরের বাহাদুরাবাদ ঘাট পয়েন্টে যমুনা নদীতে সোমবার দুপুরে বন্যার পানি বিপদ সীমার ১২২ সেন্টি মিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। গত ৩৮ ঘন্টায় বন্যার পানি ৭৭ সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়েছে। উপজেলা ১২টি ইউনিয়য়নের মধ্যে ৭ টি ইউনিয়নের প্রায় ১ লক্ষ মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। ইসলামপুর অন্তত: ৩ টি অভ্যন্তরীণ সড়কের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে।

সরেজমিন ঘুরে জানাগেছে, বন্যায় ইসলামপুর-উলিয়া এবং ইসলামপুর-গুঠাইল ও ইসলামপুর-কুলকান্দি,সড়ক ও কুলকান্দি ইউনিয়নের বন্যায় নিয়ন্তন বাধ ভেঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ইসলাপুরের ৭০টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে গেছে। ইসলামপুরের কুলকান্দি,বেলগাছা,চিনাডুলী ইউনিয়নের দক্ষিণ চিনাডুলি,দেওয়ানপাড়া, ডেবরাইপেচ, বলিয়াদহ, সিংভাঙ্গা, পশ্চিম বামনা, পূর্ববামনা ,গিলাবাড়ী, মন্নিয়া,

চরমন্নিয়া,বুরুল,সিন্দুরতলী,বেড়কুশা,জিগাতলা, অঞ্চল সমূহের বিস্তীর্ণ জনপদের বন্যা পরিস্থিতি মারাতœক আকার ধারণ করেছে। গত তিনদিনে বন্যার পানির তীব্র স্রোতে ভেঙ্গে পড়েছে দেওয়ান পাড়া গ্রামের অন্তত: ৮০টি বসতভিটা। বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তরা আশপাশের উঁচু জায়গায় আশ্রয় নিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছেন। অপরদিকে বন্যার ¯্রােতে ইসলামপুরের সাপধরী ইউনিয়নের মন্ডলপাড়া এবং বেলগাছা ইউনিয়নের মন্নিয়া গ্রামে নদী ভাঙ্গনে বসতভিটা হারিয়েছে ৫শতাধিক পরিবার।

ইসলামপুরের ইউএনও মো. মিজানুর রহমান জানান, যমুনা থেকে নেমে আসা বন্যার পানিতে এ উপজেলার সাপধরী, চিনাডুলি, বেলগাছা, কুলকান্দি, নোয়ারপাড়া, পাথর্শী ও ইসলামপুর সদর ইউনিয়ন সমূহের মানুষ পানিবন্দি বেপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

Comments are closed.